projukti mela‘ভিশন টু সার্ভ গো উইথ আইসিটি’ স্লোগানকে সামনে রেখে দেশের বৃহত্তম কম্পিউটার মার্কেট রাজধানীর নিউ এলিফ্যান্ট রোডের কম্পিউটার সিটি সেন্টার (মাল্টিপ্ল্যান) শুরু হতে যাচ্ছে ৬ দিনব্যাপী প্রযুক্তি পণ্যের মেলা।
‘ডিজিটাল আইসিটি ফেয়ার-২০১৬’ নামের এ মেলা শুরু হবে ২০ জানুয়ারি। চলবে ২৫ জানুয়ারি পর্যন্ত। কম্পিউটার সিটি সেন্টার দোকান মালিক সমিতি আয়োজিত এবারের মেলায় সাড়ে ৬ শতাধিক প্রতিষ্ঠান সর্বশেষ প্রযুক্তির কম্পিউটার, ল্যাপটপ, ট্যাবলেট, ক্যামেরা, ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরাসহ তথ্যপ্রযুক্তির সর্বশেষ নানা পণ্য প্রদর্শন ও বিক্রি করবে। পাশাপাশি থাকবে প্রযুক্তি পণ্যের ওপর বিশেষ ছাড় ও আকর্ষণীয় উপহার।
আজ ১০ জানুয়ারি রোববার, আনুষ্ঠানিকভাবে মেলার লোগো উন্মোচন করা হয়। এ উপলক্ষ্যে আয়োজিত অনুষ্ঠানে কম্পিউটার সিটি সেন্টার দোকান মালিক সমিতির সভাপতি ও মেলার আহবায়ক তৌফিক এহেসান বলেন, প্রতিবারের চেয়ে এবার আরো বড় পরিসরে ও জাঁকজমকভাবে মেলা আয়োজন করা হচ্ছে। দেশের সর্বস্তরের মানুষের মাঝে কম্পিউটার ও তথ্য প্রযুক্তির ব্যাপক ব্যবহার এবং এর সুফল ছড়িয়ে দিয়ে, বহুল প্রত্যাশিত ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যেই নিয়মিত এ মেলার আয়োজন করা হয়।
অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন কম্পিউটার সিটি সেন্টার দোকান মালিক সমিতির নেতৃবৃন্দ, মেলার পরিচালকবৃন্দ ও স্পন্সর প্রতিনিধিসহ অনেকে।
মেলার সদস্য সচিব ও সিঅ্যান্ডসি ট্রেড ইন্টারন্যাশনালের স্বত্ত্বাধিকারী ইঞ্জিনিয়ার সুব্রত সরকার বলেন, মেলায় বাংলাদেশের শীর্ষ আইসিটি পণ্য আমদানীকারক ও ব্যবসায়ীরা বিশ্বের মানসম্পন্ন ব্র্যান্ডের আধুনিক প্রযুক্তি প্রদর্শন করবে।
মেলা উপলক্ষে এবার বিশেষ আয়োজন হিসেবে থাকছে – প্রযুক্তি পণ্যের ওপর মূল্য ছাড়, মেলা চলাকালীন সময় প্রতিদিন র‌্যাফেল-ড্র এর মাধ্যমে আকর্ষণীয় পুরষ্কার, রক্তদান কর্মসূচি, এন্ট্রিপাশের সঙ্গে ফ্রি মুভি দেখার সু-ব্যবস্থা, ফ্রি ইন্টারনেট, ওয়াই-ফাই, গেমিং জোন, ফটোগ্রাফি ও সেলফি প্রতিযোগিতা, শিশু চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা, পিঠা উৎসব সহ নানা আয়োজন।
মেলার শেষ দিনে তথ্যপ্রযুক্তি খাতে বিশেষ অবদানের জন্য দেওয়া হবে গুণীজন সংবর্ধনা। এছাড়াও তথ্যপ্রযুক্তি সাংবাদিকতায় বিশেষ অবদানের জন্য দেওয়া হবে ক্রেষ্ট এবং থাকবে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।
আয়োজকেরা জানান, প্রতি বছরের মতো এবারের মেলায় বিশেষভাবে গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে স্কুল কলেজে ছাত্র-ছাত্রীদের ওপর। দেশের শিক্ষা ব্যবস্থা ও শিক্ষা পদ্ধতিতে সর্বাধুনিক ও সর্বশেষ প্রযুক্তির ব্যবহার নিশ্চিত করা এবং এর সুফল সম্পর্কে ধারণা দিতে মেলায় থাকবে নানা আয়োজন। মেলায় পরিদর্শনের জন্য রাজধানীর বিভিন্ন স্কুল শিক্ষার্থীদের জন্য থাকবে সু-ব্যবস্থা। ঢাকাসহ সারা দেশের যেকোনো প্রতিষ্ঠানে অধ্যায়নরত ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য মেলার প্রবেশ ফ্রি করা হয়েছে। শুধুমাত্র শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান প্রদত্ত পরিচয়পত্র দিয়েই ছাত্র-ছাত্রীরা মেলা পরিদর্শন করতে পারবে। আগত শিশু ও শিক্ষার্থীদের মাঝে বিভিন্ন উপহার সামগ্রী প্রদান করা হবে।
মেলার গোল্ড স্পন্সর- এইচপি, আসুস, স্যামসাং ও লেনোভো। সিলভার স্পন্সর- লজিটেক এবং এমএসআই। এছাড়া স্পন্সর হিসেবে আছে- টিপি লিংক, রেপো এবং ইসেট।