Messi+and+Ronaldoব্যালন ডি’অর পুরস্কার ঘোষণার আগে সাক্ষাৎকার পর্বে লিওনেল মেসি ও ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো একে অপরের প্রশংসা করলেও দুই তারকার ভোট দেওয়ার বিষয়টি প্রমাণ করে, প্রতিপক্ষকে মোটেও সম্মান দেখান না তারা! ভোট দেওয়ার ক্ষেত্রে এই দুই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী কেউ কাউকে গুরুত্বই দেননি। সেরার প্রশ্নে বার্সেলোনা তারকা মেসির তিন জনের সংক্ষিপ্ত তালিকায় নেই রোনালদো। আর রিয়াল মাদ্রিদের রোনালদোও তার প্রতিপক্ষকে এই মুহূর্তে বিশ্বের তিন সেরা খেলোয়াড়ের এক জন ভাবেন না।
ভোট দেয়ার ক্ষেত্রে ‘সংকীর্ণ মানসিকতা’ দেখিয়ে নিজের ক্লাবের ফুটবলারদেরই কেবল বেছে নিয়েছেন তারা।
বর্ষসেরা ফুটবলার ফিফা-ব্যালন ডি’অর জয়ের লড়াইয়ে ফিফা সদস্য দেশগুলোর অধিনায়ক, কোচ আর বাছাই করা সাংবাদিকরা ভোট দিতে পারেন।
গত সোমবার জুরিখে জাঁকজমকপূর্ণ অনুষ্ঠানে রোনালদো আর নেইমারকে পেছনে ফেলে ২০১৫ সালে পঞ্চমবারের মতো বর্ষসেরার পুরস্কার জেতেন মেসি। ‘সোনার বল’ আবার নিজের করে নিতে মেসি পেয়েছেন মোট ৪১.৩৩ শতাংশ ভোট। রোনালদো ২৭.৭৬ শতাংশ আর নেইমার ৭.৮৬ শতাংশ ভোট পান। পুরস্কার ঘোষণার পর জানা যায় কে কাকে ভোট দিয়েছেন।আর্জেন্টিনার অধিনায়ক হিসেবে মেসি তার ভোট দেন তার বার্সেলোনা সতীর্থ লুইস সুয়ারেস, নেইমার ও আন্দ্রেস ইনিয়েস্তাকে।
পর্তুগালের অধিনায়ক রোনালদো তার তিনটি ভোট দেন রিয়াল মাদ্রিদের তিন সতীর্থ করিম বেনজেমা, হামেস রদ্রিগেস ও গ্যারেথ বেলকে।
সংক্ষিপ্ত তালিকায় থাকা নেইমারও ক্লাবের প্রতি বিশ্বস্ততা দেখিয়েছেন। ব্রাজিল অধিনায়ক ভোট দিয়েছেন তার আক্রমণভাগের সতীর্থ মেসি ও সুয়ারেস এবং মিডফিল্ডার ইভান রাকিতিচকে।
রোনালদোর বিবেচনায় সেরা ফুটবলারদের কেউই ফিফা-ব্যালন ডি’অরের লড়াইয়ে তিনজনের সংক্ষিপ্ত তালিকায় আসতে পারেননি। আর মেসি যাদের সেরা খেলোয়াড় মনে করেন তাদের একজন এই তালিকায় স্থান পেয়েছেন।
আর্জেন্টিনা কোচ জেরার্দো মার্তিনো বেছে নিয়েছেন তার নিদের দেশের মেসি, সের্হিও আগুয়েরো ও হাভিয়ের মাসচেরানোকে।
ব্রাজিলের কোচ দুঙ্গা কিন্তু তার দলের অধিনায়কের প্রতিদ্বন্দ্বীদের ভোট দিতে কার্পণ্য করেননি; দিয়েছেন নেইমার, মেসি ও রোনালদোকে। পর্তুগাল কোচ ফের্নান্দো সান্তোসও রোনালদোকে প্রথম ভোটটি দিয়ে বাকি দুটি দিয়েছেন মেসি ও নেইমারকে।
জার্মানির অধিনায়ক বাস্টিয়ান শোয়াইস্টাইগার মেসি বা রোনালদোর কাউকেই ভোট দেননি। তার ভোট গেছে মানুয়েল নয়ার, টমাস মুলার ও নেইমারের বাক্সে।
সুইডেনের অধিনায়ক জ্লাতান ইব্রাহিমোভিচ ও নেদারল্যান্ডের অধিনায়ক আরিয়েন রবেন রিয়াল মাদ্রিদ তারকাকে সেরা খেলোয়াড় মনে করেননি। তারা দুজনেই ভোট দিয়েছেন বার্সেলোনার আক্রমণত্রয়ী মেসি, নেইমার ও সুয়ারেসকে।
ইংল্যান্ডের অধিনায়ক ওয়েইন রুনি মেসিকে প্রথম ভোটটি দিয়েছেন; পরের দুটি ভোট মুলার ও রোনালদোকে।