করমর্দন না করলে ৫০০০ ডলার জরিমানা


man_woman_handshakeসুইজারল্যান্ডে পাঠদানের শুরু এবং শেষে শিক্ষিকার সঙ্গে করমর্দন করতে অস্বীকৃতি জানালে মুসলিম ছাত্রদের পাঁচ হাজার ডলার (বাংলাদেশি মুদ্রায় ৩৯২৭৬২.২৫ টাকা) জরিমানা দিতে হবে। দেশটির উত্তরাঞ্চলের আঞ্চলিক কর্তৃপক্ষ বিতর্কিত এ আইন জারি করেছে বলে বিবিসি জানিয়েছে।
এর আগে আরলেশইম জেলার একটি পৌরসভার স্কুলে দুই মুসলমান কিশোর ভাইকে বিপরীত লিঙ্গের সঙ্গে করমর্দন করা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছিল। এ দুই ভাইয়ের একজনের বয়স ১৪ এবং অপর জনের ১৫ । কিন্তু নতুন আইন জারির ফলে তাদেরকে সে ধর্মীয় অধিকার থেকে বঞ্চিত করা হলো।
দুই ভাইকে করমর্দন করা থেকে অব্যাহতি দেয়ার বিষয়টি সংবাদ মাধ্যমের মনোযোগ আকর্ষণ করে। এ নিয়ে সুইজারল্যান্ডে ব্যাপক প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হলে স্কুল কর্তৃপক্ষ বিষয়টি নিষ্পত্তির জন্য স্থানীয় কর্তৃপক্ষের দ্বারস্থ হয়। কারণ সুইজারল্যন্ডে ক্লাসের শুরুতে ও শেষে শিক্ষার্থীদের সাথে শিক্ষকদের হাত মেলানোর রীতি রয়েছে।
সুইজারল্যান্ডে জনসংখ্যা আশি লাখ এবং সেখানে প্রায় সাড়ে তিন লাখ মুসলমান ধর্মাবলম্বী বসবাস করে। ইসলামে পরিবারের কয়েকজন সদস্য ছাড়া অন্য কারো দেহ স্পর্শ করার অধিকার দেওয়া হয় না ।
দেশটির আইনমন্ত্রী এক টেলিভিশন সাক্ষাৎকারে এ প্রসঙ্গে বলেছেন ‘একে অপরের সঙ্গে হাত মেলানো আমাদের সংস্কৃতির একটা অংশ।’
কর্তৃপক্ষ নির্দেশ দেয় , করমর্দন করার অধিকার শিক্ষক-শিক্ষিকার রয়েছে। এ ছাড়া, সুইজারল্যান্ডের সমাজে বিদেশিদের মিলেমিশে থাকার পরিবেশ তৈরি এবং লিঙ্গ সমতার স্বার্থে ওই দুই ছাত্রের ধর্মীয় বিশ্বাসকে গুরুত্ব দেওয়া যায় না বলে নির্দেশে উল্লেখ করা হয় ।

Advertisements

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s