internetজননিরাপত্তা নিশ্চিত ও জঙ্গি বিরোধী অভিযানের প্রস্তুতি হিসেবে ইন্টারনেট ব্ল্যাকআউট মহড়া চালানো হবে। এই মহড়ার আওতায় যে কোনো এলাকার ইন্টারনেট নির্দিষ্ট সময়ের জন্য বন্ধ রেখে পরীক্ষা চালানো হবে। বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন রেগুলেটরি কমিশন (বিটিআরসি) ও ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (আইসিপিএবি) এর যৌথ উদ্যোগে এই মহড়া হবে।
রাজধানীর একটি এলাকায় অফিস ছুটির পর টেলিযোগাযোগ ও ইন্টারনেট সেবা বন্ধের একটি সাময়িক মহড়ার আয়োজন করা হয়েছে। সোমবার আজ বিকেল সাড়ে ৫টা থেকে ভোর ৫টার মধ্যে এই মহড়া অনুষ্ঠিত হবে। বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি) ও টেলিযোগাযোগ সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান যৌথভাবে এ মহড়ার আয়োজন করছে। বিটিআরসি গণমাধ্যম বিভাগের জ্যেষ্ঠ সহকারী পরিচালক মো. জাকির এ তথ্য বাংলামেইলকে নিশ্চিত করেছেন।
সূত্র জানায়, গতকাল রোববার বিটিআরসি কার্যালয়ে এ সংক্রান্ত একটি বৈঠকে মহড়ার সিদ্ধান্ত হয়। বৈঠকে বিটিআরসিসহ মোবাইল অপারেটর, ইন্টারনেট সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান (আইএসপি), আন্তর্জাতিক গেটওয়ে (আইজিডব্লিউ) অপারেটরসহ সংশ্লিষ্ট টেলিযোগাযোগ সেবাদাতা প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রতিনিধিরা অংশ নেন। এই মহড়ায় আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে কারিগরি সহযোগিতা করবে বিটিআরসি ও টেলিযোগাযোগ সেবাদাতা প্রতিষ্ঠানগুলো।
প্রসঙ্গত, গত ১ জুলাই গুলশানের হলি আর্টিসান বেকারিতে সন্ত্রাসী হামলার সময় জরুরি পরিস্থিতি মোকাবিলায় আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী টেলিযোগাযোগ ও ইন্টারনেট সেবা বন্ধ করতে বেশ সমস্যায় পড়েছিল। এই সমস্যা কাটিয়ে উঠতেই এবার মহড়ার  আয়োজন করা হচ্ছে। তবে ঠিক কোনো এলাকায় এ মহড়া অনুষ্ঠিত হবে সে বিষয়ে আগাম তথ্য জানানো হচ্ছে না।