djokovic.jpgউইম্বলডনের হতাশা কাটিয়ে কোর্টে আবারো নিজের আধিপত্য দেখালেন নোভাক জোকোভিচ। প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে রজার্স কাপের চারটি শিরোপা জিতেছেন ওয়ার্ল্ড নাম্বার ওয়ান। এবার রিও অলিম্পিকে (৪ আগস্ট) সার্বিয়াকে প্রতিনিধিত্ব করার চ্যালেঞ্জ তার সামনে।
অলিম্পিকের জন্য গতবারের চ্যাম্পিয়ন অ্যান্ডি মারে, রাফায়েল নাদাল ও রজার ফেদেরার আগেই নাম প্রত্যাহার করে নেওয়ায় পরিষ্কার ফেভারিট হিসেবেই শিরোপা উঁচিয়ে ধরেন সার্বিয়ান টেনিস আইকন। প্রসঙ্গত, ইনজুরির কারণে ক’দিন আগেই অলিম্পিকসহ চলতি বছর আর টেনিস না খেলার ঘোষণা দিয়েছেন ফেদেরার।
কানাডার টরন্টোয় জাপানিজ তারকা কেই নিশিকোরিকে সরাসরি সেট ৬-৩, ৭-৫ গেমে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন তকমা গায়ে লাগান জোকোভিচ। দু’জনের মধ্যে দ্বিতীয় সেটেই কেবল প্রতিদ্বন্দ্বিতা জমে ওঠে। তবে ম্যাচটাকে তৃতীয় সেটে যেতে দেননি ১২ বারের গ্র্যান্ড স্লাম জয়ী।
অন্যদিকে, নারী এককে মার্কিন তরুণী ম্যাডিসন কিইসকে ৭-৬ (৭-২), ৬-৩ গেমে হারিয়ে শিরোপা উদযাপনে মাতেন রোমানিয়ার সিমোনা হালেপ। শুধু তাই নয়, র‌্যাংকিংয়ে তিন নম্বরে উঠে এসেছেন ২৪ বছর বয়সী এ টেনিস সেনসেশন।