man-uরিয়াল মাদ্রিদ ও বার্সেলোনাকে ছাড়িয়ে গত মৌসুমে ফুটবল ক্লাবগুলোর মধ্যে বিশ্বে সবচেয়ে বেশি আয় করেছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। শীর্ষ অ্যাকাউন্টিং প্রতিষ্ঠান ডেলোয়েটের এক গবেষণা প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ২০১৫-১৬ মৌসুমে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের ক্লাবটির আয় রেকর্ড ৬৮ কোটি ৯০ লাখ ইউরো।
২০০৩-০৪ মৌসুমের পর আবার বিশ্বের সবচেয়ে বেশি আয় করা ফুটবল ক্লাব হলো ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড।
টানা ১১ মৌসুম আয়ের দিক দিয়ে শীর্ষে ছিল স্পেনের রিয়াল মাদ্রিদ। ২০১৪-১৫ মৌসুমে তাদের পেছনেই ছিল চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী বার্সেলোনা।
এবারও ডেলোয়েটের ‘ফুটবল মানি লিগ’ -এ রানার্সআপ হয়েছে লা লিগা চ্যাম্পিয়ন বার্সেলোনা। কাতালুনিয়ার ক্লাবটির গত অর্থবছরে আয় ৬২ কোটি ২ লাখ ইউরো। তৃতীয় স্থানে নেমে যাওয়া রিয়ালের আয় ৬২ কোটি ১ লাখ ইউরো।
এই প্রথম কোনো ক্লাব ৬০ কোটি ইউরো আয়ের মাইলফলক পার হলো।
এক ধাপ নেমে গিয়ে জার্মানির বায়ার্ন মিউনিখ এবার আছে চতুর্থ স্থানে। তাদের আয় ৫৯ কোটি ২০ লাখ ইউরো। এর পরের অবস্থানে থাকা ম্যানচেস্টার সিটির আয় ৫২ কোটি ৪৯ লাখ ইউরো।
শীর্ষ ২০টি ক্লাবের মোট আয় ১২ শতাংশ বেড়ে হয়েছে রেকর্ড ৭৪০ কোটি ইউরো। এর মধ্যে আটটি ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের ক্লাব যাদের মোট আয় ঠিক অর্ধেক ৩২০ কোটি ইউরো।
ডেলোয়েট ফুটবল মানি লিগের শীর্ষ ১০ ক্লাব:
১. ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড (ইংল্যান্ড) ৬৮ কোটি ৯০ লাখ ইউরো
২. বার্সেলোনা (স্পেন) ৬২ কোটি ২ লাখ ইউরো
৩. রিয়াল মাদ্রিদ (স্পেন) ৬২ কোটি ১ লাখ ইউরো
৪. বায়ার্ন মিউনিখ (জার্মানি) ৫৯ কোটি ২০ লাখ ইউরো
৫. ম্যানচেস্টার সিটি (ইংল্যান্ড) ৫২ কোটি ৪৯ লাখ ইউরো
৬. পিএসজি (ফ্রান্স) ৫২ কোটি ৯ লাখ ইউরো
৭. আর্সেনাল (ইংল্যান্ড) ৪৬ কোটি ৮৫ লাখ ইউরো
৮. চেলসি (ইংল্যান্ড) ৪৪ কোটি ৭৪ লাখ ইউরো
৯. লিভারপুল (ইংল্যান্ড) ৪০ কোটি ৩৮ লাখ ইউরো
১০. ইউভেন্তুস (ইতালি) ৩৪ কোটি ১১ লাখ ইউরো

Advertisements