গণমাধ্যমকে ফের তুলোধুনো করলেন ট্রাম্প


donald-trumpসাংবাদপত্র ও গণমাধ্যমকে ফের তুলোধুনো করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। গণমাধ্যমের বিরুদ্ধে সরাসরি অসততার অভিযোগ করে তিনি বলেন, দুর্ভাগ্যজনকভাবে ওয়াশিংটন, নিউ ইয়র্ক এবং লস এঞ্জেলেসের বেশিরভাগ গণমাধ্যম সাধারণ মানুষের কথা না বলে, সুবিধাভোগীদের পক্ষে কথা বলে। বৃহস্পতিবার হোয়াইট হাউসে প্রথম একক এবং দীর্ঘ ৭৭ মিনিটের এক সংবাদ সম্মেলনে ট্রামম্প সাংবাদিকদের এমন আক্রমণ করে কথা বলেন।
সংবাদপত্রগুলোতে কয়েক সপ্তাহ ধরে প্রশাসনে বিশৃঙ্খলার খবরে অত্যন্ত বিরক্ত হয়েছেন বলে জানান ট্রাম্প। বিশৃঙ্খলার খবর উড়িয়ে দিয়ে তিনি বলেন, “এ প্রশাসন ভালভাবে কাজ করে যাওয়া যন্ত্রের মতই চলছে।”
হোয়াইট হাউসের নানা সমস্যার জন্য ট্রাম্প তার আগের প্রশাসনকে দায়ী করার চেষ্টা নিয়ে বলেন, সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার আমল থেকেই তিনি একটি জট পাকানো অবস্থা পেয়েছেন। এমন একটি অবস্থার মধ্যেও বর্তমান প্রশাসন ভাল চলছে বলে দাবি করেন ট্রাম্প।
তিনি অভিযোগ করে বলেন, কোনও একটি খারাপ খবরও যদি সত্য হয় তাহলে তাতে তিনি কিছু মনে করবেন না। কিন্তু তার প্রশাসন নিয়ে গণমাধ্যমগুলোতে যা বলা হচ্ছে তার বেশিরভাগই অন্যায়।
গণমাধ্যমে গোয়েন্দা তথ্য ফাঁসের সমালোচনা করে ট্রাম্প বলেন, “এত অসৎ গণমাধ্যম, সত্যি বলতে, রাজনৈতিক গণমাধ্যমের চেয়ে এমন অসৎ মাধ্যম আমি আর দেখিনি।”
মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা মাইকেল ফ্লিনের পদত্যাগের ঘটনায়ও গণমাধ্যমে কিছু তথ্য ফাঁসের যোগ আছে। এ ব্যাপারে ট্রাম্প বলেন, “তথ্য ফাঁসের বিষয়টি সত্য। ফাঁসের বিষয়টি পুরোপুরি ঠিক। কিন্তু খবর ভুয়া। কারণ, খবরের বেশিরভাগই ভুয়া।”
সংবাদ সম্মেলনে মাইকেল ফ্লিনের পক্ষে সাফাই দিয়ে ট্রাম্প বলেন, সরকার বদলের সময়টিতে রাশিয়ার রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে নিষেধাজ্ঞা নিয়ে আলোচনা করে থাকলে ফ্লিন ঠিক কাজই করেছেন। শুধুমাত্র ভাইস প্রেসিডেন্ট কে ওইসব আলোচনা সম্পর্কে বিভ্রন্তিকর তথ্য দেওয়ার কারণেই তাকে পদত্যাগ করতে বলা হয়েছে।
ট্রাম্পের সহযোগীদের সঙ্গে রাশিয়ার সম্পর্ক নিয়ে ক্রমেই যে বিতর্ক দাঁনা বাধছে তা বৈরি সংবাদ মাধ্যমেরই ‘কারসাজি’ বলে উল্লেখ করেন তিনি। সেইসঙ্গে গতবছর নির্বাচনের আগে মস্কোর গোয়েন্দা কর্মকর্তাদের সঙ্গে তার নির্বাচনী প্রচারশিবিরের যোগাযোগের বিষয়টি নিয়ে গণমাধ্যমের খবরও ‘ভুয়া’ বলে অস্বীকার করেন ট্রাম্প।
গণমাধ্যমের সমালোচনায় ট্রাম্প আরও বলেন, “কালই তারা বলবে, ডোনাল্ড ট্রাম্প সাংবাদিকদের প্রতি ক্ষোভ উগরে দিচ্ছেন, উন্মত্তের মত কথা বলছেন। কিন্তু আমি তা করছি না। আমি কেবলমাত্র আপনাদেরকে বলছি, আপনারা জানেন, আপনারা অসৎ মানুষ।

ট্রাম্পের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করলেন রবার্ট হারওয়ার্ড
যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টার পদের বিষয়ে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেছেন নৌবাহিনীর সাবেক ভাইস অ্যাডমিরাল  হারওয়ার্ড।
বৃহস্পতিবার হোয়াইট হাউসের এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা এই তথ্য জানিয়েছেন।
বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে জানানো হয়, বিতর্কের মুখে গত সোমবার মাইকেল ফ্লিনের পদত্যাগের পর হারওয়ার্ডকে জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টার পদের প্রস্তাব দেয়া হয়। কিন্তু তিনি এই প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেছেন।
হোয়াইট হাউসের এক কর্মকর্তা বলেন, প্রস্তাব গ্রহণ না করার বিষয়ে হারওয়ার্ড পারিবারিক ও আর্থিক কারণ উল্লেখ করেছেন।
তবে হারওয়ার্ডের সিদ্ধান্তের পেছনে ভিন্ন কারণ রয়েছে বলে মার্কিন গণমাধ্যমে বলা হচ্ছে।

Advertisements

About Emani

I am a professional Graphic designers create visual concepts, by hand or using computer software, to communicate ideas that inspire, inform, or captivate consumers. I can develop overall layout and production design for advertisements, brochures, magazines, and corporate reports.
This entry was posted in International (আন্তর্জাতিক). Bookmark the permalink.

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s